Breaking News
Home / উচ্চশিক্ষা / বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়-(বশেমুরকৃবি)

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়-(বশেমুরকৃবি)

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়-(বশেমুরকৃবি) হচ্ছে বাংলাদেশের একটি সরকারি কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় যা ১৯৯৮ সালে প্রতিষ্ঠিত হয়।সিমাগো ইনস্টিটিউট র‍্যাংকিং, ২০২১’ প্রতিবেদনে আন্তর্জাতিক মানদণ্ডে বাংলাদেশের সরকারি-বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর মধ্যে গবেষণা, উদ্ভাবন ও সামাজিক অবস্থান এই তিন সূচকে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় সেরা (প্রথম স্থান) হয়েছে।

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়-(বশেমুরকৃবি)

প্রাক্তন নাম: ইনস্টিটিউট অফ পোস্ট গ্রাজুয়েট স্টাডিজ ইন এগ্রিকালচার (ইপসা)
ধরনঃ সরকারি বিশ্ববিদ্যালয়
স্থাপিতঃ ২২ নভেম্বর ১৯৯৮
উপাচার্য :

আচার্য:

অধ্যাপক ড. মো. গিয়াসউদ্দীন মিয়া

রাষ্ট্রপতি আব্দুল হামিদ

শিক্ষায়তনিক ব্যক্তিবর্গঃ ২১৪
নীতিবাক্য: জ্ঞান, দক্ষতা, প্রযুক্তি, সমৃদ্ধি
অবস্থানঃ গাজীপুর, বাংলাদেশ
২৪.০৩৬২° উত্তর ৯০.৩৯৫৯° পূর্ব
প্রশাসনিক ব্যক্তিবর্গ: ৩৬৫
শিক্ষাঙ্গনঃ ১৯০ একর
অধিভুক্তি: বাংলাদেশ বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরী কমিশন
সংক্ষিপ্ত নাম: বশেমুরকৃবি
ওয়েবসাইটঃ bsmrau.edu.bd

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় ইতিহাস

বশেমুরকৃবি ২২ নভেম্বর ১৯৯৮ প্রতিষ্ঠিত হয়, পূর্বে এটি কৃষি পোস্ট গ্রাজুয়েট স্টাডিজ ইনস্টিটিউট (ইপসা) হিসেবে স্থাপিত হয়। ১৯৮৩ সালে, ইপসা মূলত বাংলাদেশ কৃষি বিজ্ঞান কলেজ (বিসিএএস) হিসাবে প্রতিষ্ঠিত হয়েছিল। এটি বাংলাদেশ কৃষি গবেষণা ইনস্টিটিউট (বিএআরআই) এর একাডেমিক অংশ এবং বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের সাথে একাডেমিকভাবে যুক্ত ছিল। ইপসা বাংলাদেশ সরকার কর্তৃক একটি স্বায়ত্তশাসিত প্রতিষ্ঠানে রূপান্তরিত হয় এবং ১৯৯১ সালে কোর্স ভিত্তিক এমএস এবং পিএইচডি প্রোগ্রাম শুরু করে। ইপসা এর স্নাতক প্রোগ্রামটি ওরেগন স্টেট বিশ্ববিদ্যালয়ের এল. এম. আইসগ্রুভারের নেতৃত্বে ইপসা-এর শিক্ষকরা বিকাশ করেছিলেন।

১৯৯৮ সালে ইপসা-কে শেখ মুজিবুর রহমান কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ে রূপান্তর করা হয়। একটি সরকারি বিশ্ববিদ্যালয় হিসাবে এটি স্নাতকোত্তর প্রোগ্রাম চালিয়ে যায় এবং একটি স্নাতক প্রোগ্রাম চালু করে। ২০০৫ সালে, বশেমুরকৃবি কৃষিক্ষেত্রে স্নাতক ডিগ্রি  প্রদান করা শুরু করে।

২০০৮ সালে বশেমুরকৃবিতে মৎস্য অনুষদ প্রতিষ্ঠা করা হয় এবং বিএস ফিসারিজ ডিগ্রি দেওয়া শুরু করা হয়। ৩ বছর পর, ২০১২ সালে বশেমুরকৃবি কৃষি অর্থনীতি ও গ্রামীণ উন্নয়ন অনুষদ প্রতিষ্ঠা করা হয় এবং কৃষি অর্থনীতিতে বিএস প্রদান করাশুরু হয়। এখন বশেমুরকৃবিতে পাঁচটি অনুষদ রয়েছে।

অবস্থান

এটি গাজীপুর জেলার দক্ষিণ সালনায় অবস্থিত। এটি গাজীপুর চৌরাস্তা থেকে ৯.৫ কিলোমিটার (৫.৯ মাইল) উত্তরে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের ঠিক পূর্ব দিকে অবস্থিত।

বিস্তারিত দেখুন গুগল ম্যাপে

যোগাযোগের ঠিকানা হল-

  • বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়
  • গাজীপুর, বাংলাদেশ
  • যোগাযোগ :+88029205323
  • ইমেইল :registrar@bsmrau.edu.bd
  • ওয়েবসাইট : bsmrau.edu.bd

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাস

বশেমুরকৃবি ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের সালনায়, গাজীপুর জেলা সদর থেকে ১৫ কিলোমিটার (৯.৩ মাইল), জয়দেবপুর চৌরাস্তা থেকে ৯.৫ কিলোমিটার (৫.৯ মাইল), সিকিউরিটি মুদ্রণ প্রেস ও সমরাস্ত্র কারখানা থেকে ৫ কিলোমিটার (৩.১ মাইল) এবং ঢাকা শহর থেকে ৪০ কিলোমিটার (২৫ মাইল) দূরে অবস্থিত। ক্যাম্পাসটি প্রায় ১৯০ একর (৭৭ হেক্টর) জমির উপর গড়ে উঠেছে, যার মধ্যে ৫০ একর (২০ হেক্টর) জমির উপর গবেষণা খামার মাঠ রয়েছে।

বিভাগ এবং অনুষদসমূহ

স্নাতকোত্তর অনুষদ

বিভাগগুলি এমএস ডিগ্রি প্রদান করে

বিভাগগুলি পিএইচডি ডিগ্রি প্রদান করে

১। কৃষি অর্থনীতি ১। কৃষি অর্থনীতি
২। কৃষি সম্প্রসারণ ও গ্রামীণ উন্নয়ন ২। কৃষি সম্প্রসারণ ও পল্লী উন্নয়ন
৩। কৃষিবনায়ন এবং পরিবেশ ৩। কৃষিবনায়ন এবং পরিবেশ
৪। কৃষি প্রকৌশল ৪। কৃষিতত্ব
৫। কৃষি প্রক্রিয়াকরণ ৫। জৈবপ্রযুক্তি
৬। কৃষিতত্ব ৬। ফসল উদ্ভিদ বিদ্যা
৭। প্রাণী বিজ্ঞান ও নিউট্রিশন ৭। কীটতত্ব
৮। অ্যাকুয়াকালচার ৮। কৌলিতত্ব এবং উদ্ভিদ প্রজনন
৯। জৈবপ্রযুক্তি ৯। উদ্যানতত্ব
১০। ফসল উদ্ভিদ বিদ্যা ১০। উদ্ভিদ ও রোগতত্ব
১১। ডেইরি এন্ড পোল্ট্রি সায়েন্স ১১। মৃত্তিকা বিজ্ঞান
১২। পরিবেশ বিজ্ঞান ১২। বীজ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি (ইউনিট)
১৩। কীটতত্ব
১৪। ফিসারিজ বায়োলজি এন্ড এ্যকোয়াটিক ইনভায়োরনমেন্ট

সহায়ক বিভাগসমূহ

১৫। মৎস্য প্রযুক্তি ১। কম্পিউটার বিজ্ঞান ও তথ্য প্রযুক্তি
১৬। ফিশারিজ ম্যানেজমেন্ট ২। পরিসংখ্যান
১৭। জেনেটিক্স এবং ফিশ ব্রিডিং
১৮। স্ত্রীরোগ, প্রসেসট্রিক্স এবং প্রজনন স্বাস্থ্য
১৯। কৌলিতত্ব এবং উদ্ভিদ প্রজনন
২০। উদ্যানতত্ব
২১। প্যাথোবায়োলজি
২২। উদ্ভিদ ও রোগতত্ব
২৩। মৃত্তিকা বিজ্ঞান
২৪। বীজ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি (ইউনিট)

কৃষি অনুষদ

  • কৃষি সম্প্রসারণ ও গ্রামীণ উন্নয়ন
  • কৃষিবনায়ন কৃষিবনায়ন এবং পরিবেশ
  • কৃষিতত্ব
  • কৃষি প্রকৌশল
  • কৃষি প্রক্রিয়াকরণ
  • বায়োকেমিস্ট্রি এবং আণবিক জীববিজ্ঞান
  • পরিবেশ বিজ্ঞান
  • বায়োটেকনোলজি
  • কম্পিউটার বিজ্ঞান ও তথ্য প্রযুক্তি (সিএসআইটি)
  • ফসল উদ্ভিদবিদ্যা
  • কীটতত্ব
  • কৌলিতত্ত্ব এবং উদ্ভিদ প্রজনন
  • উদ্যানতত্ব
  • উদ্ভিদ ও রোগতত্ব
  • মৃত্তিকা বিজ্ঞান
  • বীজ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি ইউনিট

মৎস্য অনুষদ

ভেটেরিনারি মেডিসিন এবং প্রাণী বিজ্ঞান অনুষদ কৃষি অর্থনীতি ও গ্রামীণ উন্নয়ন অনুষদ
১.এ্যকুয়া কালচার বিভাগ ১.অ্যানাটমি ও হিস্টোলজি বিভাগ ১.কৃষি অর্থনীতি ও গ্রামীণ উন্নয়ন অনুষদ ভবন
২.মৎস্য জীববিজ্ঞান এবং জলজ পরিবেশ ২.প্রাণী প্রজনন ও জেনেটিক্স বিভাগ ২.কৃষি অর্থনীতি বিভাগ
৩.ফিশারি ম্যানেজমেন্ট ৩.প্রাণী বিজ্ঞান ও পুষ্টি বিভাগ ৩.এগ্রিবিজনেস বিভাগ
৪.মৎস্য প্রযুক্তি ৪.দুগ্ধ ও পোল্ট্রি বিজ্ঞান বিভাগ ৪.কৃষি অর্থসংস্থান ও সমবায় বিভাগ
৫.জেনেটিক্স এবং ফিশ ব্রিডিং ৫.স্ত্রীরোগবিদ্যা, প্রসেসট্রিক্স এবং প্রজনন স্বাস্থ্য বিভাগ ৫.পল্লী উন্নয়ন বিভাগ
৬.মেডিসিন বিভাগ ৬.পরিসংখ্যান বিভাগ
৭.মাইক্রোবায়োলজি ও জনস্বাস্থ্য বিভাগ
৮.প্যাথবায়োলজি বিভাগ
৯.ফিজিওলজি ও ফার্মাকোলজি বিভাগ
১০.সার্জারি ও রেডিওলজি বিভাগ

 

 আবাসিক হলসমূহ

ছাত্র হল

ছাত্রী হল

১.শহীদ আহসানউল্লাহ মাস্টার হল (এসএএম হল) ১.বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব হল
২.শহীদ তাজউদ্দিন আহমেদ হল ২.ইলা মিত্র হল

বশেমুরকৃবি এর লাইব্রেরি

বশেমুরকৃবি পাঠাগারটির নাম রাখা হয়েছে প্রফেসর ড. ইয়োশিও ইয়ামদা গ্রন্থাগার। এটির একটি পৃথক দ্বিতল ভবন রয়েছে যার ১৪,৪১৮ স্কয়ার ফিট জায়গা রয়েছে।সরকারি ছুটি ব্যতীত গ্রন্থাগারটি সকাল ৯ টা হতে কোনও বিরতি ছাড়াই রাত ৯ টা পর্যন্ত খোলা থাকে এবং শনিবার সকাল ৯ টায় লাইব্রেরি খোলা হয় এবং বিকেল ৫ টায় বন্ধ হয়, শুক্রবার সাপ্তাহিক ছুটি থাকে। এটি প্রাথমিকভাবে স্নাতকোত্তর প্রোগ্রামগুলির জন্য প্রতিষ্ঠিত হয়েছিল। তবে স্নাতক প্রোগ্রাম শুরুর সাথে সাথে স্নাতক প্রোগ্রামের সকল কোর্সের জন্য একাধিক কপিসহ প্রয়োজনীয় রেফারেন্স পাঠ্য বই সহ গ্রন্থাগারকে সজ্জিত করার চেষ্টা চলছে। এটিতে প্রায় ২১,৮০০ বই এবং ৬৫,০০০ এরও বেশি ই-জার্নালগুলির সংকলন রয়েছে। গ্রন্থাগারটি নিয়মিত জার্নাল, সাময়িকী, বুলেটিনস, দৈনিক পত্রিকা, ম্যাগাজিন ইত্যাদিতে সরবরাহ করা হয় গ্রন্থাগারটি পর্যাপ্ত বসার ও পড়ার সুযোগ এবং একটি অডিও-ভিজ্যুয়াল রুম সহ শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত।

বশেমুরকৃবি এর শিক্ষা পদ্ধতি

বশেমুরকৃবির শিক্ষার মাধ্যম ইংরেজি। বশেমুরকৃবির গবেষণায় মেয়াদ ভিত্তিক কোর্স ক্রেডিট সিস্টেম রয়েছে, যা শিক্ষার্থীরা নিম্নলিখিত বিষয়গুলি ভালভাবে বুঝতে পারছে:

কোর্স ক্রেডিট সিস্টেম: কোর্স ক্রেডিট সিস্টেমে নিয়মিত ক্লাস, অ্যাসাইনমেন্ট, অঘোষিত কুইজ এবং প্রাক-নির্ধারিত ২টি মিডটার্ম এবং চূড়ান্ত পরীক্ষার সাথে কোর্সের কাজ জড়িত। এই সিস্টেমে সাবজেক্টটি যথাযথভাবে সমজাতীয় বিষয় মডিউলগুলিতে (কোর্স) শেখানো হয়, শিক্ষার্থীরা প্রতিটি কোর্সে শিখানো বিষয় সম্পর্কে তার দক্ষতার পরিমাণ নির্দেশ করতে নেওয়া প্রতিটি কোর্সের জন্য গ্রেড প্রাপ্ত হবে ।

মেয়াদ: একটি শিক্ষাবর্ষকে গ্রীষ্ম, শরৎ এবং শীত – তিনটি ভাগে ভাগ করা হয়। প্রতিটি পদে ১২ (বারো) কার্যকর সপ্তাহ থাকে।

ক্রেডিট: একটি মেয়াদে সপ্তাহে এক বর্গ ঘণ্টা একটি ক্রেডিট হিসাবে বিবেচিত হবে। গবেষণাগার ক্লাসের জন্য, দুই শ্রেণীর সময়কে একটি ক্রেডিট হিসাবে বিবেচনা করা হবে।

কোর্স : একটি কোর্স হল শিক্ষার্থীদের পাঠ্যক্রমের অনুমোদিত পাঠ্যক্রমের অন্তর্ভুক্ত এবং নির্দিষ্ট মেয়াদে অফার করার জন্য বোর্ড অফ স্টাডিজ (বিওএস) দ্বারা সজ্জিত একটি নির্দিষ্ট বিষয়ের উপর বক্তৃতা, যোগাযোগের সময় এবং ব্যবহারিক অনুশীলনের মাধ্যমে বিতরণ করা বিষয়গুলির একটি সেট।

কোর্স কোডিং: প্রতিটি কোর্স ৩ (তিন) অক্ষর এবং একটি ৩-সংখ্যার নম্বর দ্বারা মনোনীত হয়। ৩ টি অক্ষর কোর্স সরবরাহকারী বিভাগকে নির্দেশ করে। তিনটি সংখ্যার মধ্যে প্রথম সংখ্যাটি এমন একাডেমিক বছরকে নির্দেশ করে যেখানে সাধারণত কোর্সটি দেওয়া হয়। পরবর্তী দুটি অঙ্ক অফার শব্দটি নির্দেশ করে, যেখানে প্রথম মেয়াদে ০১-৩০, দ্বিতীয় মেয়াদে ৩১-৬০ এবং তৃতীয় মেয়াদে ৬১-৯৯ রয়েছে।

একজন শিক্ষার্থীকে বিএস (কৃষি) ডিগ্রির জন্য ২৪০ ক্রেডিটের মোট ৫৪ টি কোর্স এবং ডিভিএম ডিগ্রির জন্য ২৮৩.৫ ক্রেডিটের ৬৯ টি কোর্স শেষ করতে হবে।

 

ডি ইঞ্জিনিয়ার্স নিউজ এর পোর্টালে ভিজিট করার জন্য আপনাকে অসংখ্য ধন্যবাদ। সকল আপডেট সবার আগে পেতে আমাদের নিউজ পোর্টাল ভিজিট করুন এবং ফেসবুক পেজে লাইক/ফলো দিয়ে রাখুন।

 

About E.H Emon

আস-সালামু আলাইকুম। আমার নাম মোঃ ইমদাদুল হক, এবং আমার ডাকনাম ইমন। আমি ঢাকার সরকারি পলিটেকনিক ইনস্টিটিউটের ইলেকট্রনিক্স ডিপার্টমেন্টের একজন শিক্ষার্থী। আমি ডি ইঞ্জিনিয়ার্স নিউজ এর সহকারী প্রতিষ্ঠাতা এবং পরিচালক। সব সময় আমার ইঞ্জিনিয়ার শিক্ষার্থীদের বিভিন্ন ইনফর্মেশন দিতে অত্যন্ত ভালো লাগে। সেই ভালোলাগা থেকেই এই ব্লগের উৎপত্তি।

Check Also

চট্টগ্রাম প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (চুয়েট)

চট্টগ্রাম প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (চুয়েট)

চট্টগ্রাম প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (চুয়েট) একটি সরকারি বিশ্ববিদ্যালয়। চট্টগ্রাম শহর থেকে ২৫ কিমি দূরে …

Leave a Reply

Your email address will not be published.